প্রিয় গ্রাহক আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। আর্থিক সচ্ছলতা নিয়ে ঠিক কি ধরণের চিন্তা আপনার হয়। এ কারণে কি আপনি কোন মানসিক চাপে আছেন? টেনশনের জন্য আপনার মনে কি কি চিন্তা আসে তা খুজে বের করতে পারেন। চিন্তাগুলো লিখে রাখতে পারেন,তাহলে আপনার টেনশনে কারনগুলো আরো ভাল করে বুঝতে পারবেন ও সেগুলো দূর করার পদক্ষেপ নিতে পারবেন। বিশ্বস্থ কারো সাথে (যিনি আপনার কথাগুলো নিরপেক্ষ মন নিয়ে মনোযোগের সাথে শুনবেন ও আপনার কথার গোপনীয়তা বজায় রাখবেন) টেনশনের কারনগুলো নিয়ে কথা বলতে পারেন, এতে করে নিজেকে অনেকটা হালকা বোধ হবে,আর সমাধানের একটা পথ ও পেয়ে যেতে পারেন। টেনশানের সময় নিজেকে রিলাক্স করতে ডীপ ব্রেথিং করতে পারেন, এটি আপনার মস্তিষ্কে অক্সিজেনের পরিমান বাড়িয়ে আপনাকে শান্ত করতে ও সিদ্ধান্ত নিতে সহায়তা করবে। আপনি আপনার মেধা ও যোগ্যতার বলে যে কোন অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে পারবেন, নিজের উপর এই বিশ্বাস রাখতে পারেন। অতীতের সফলতার কথা মনে করতে পারেন তা যতই ছোট হোক না কেন, এটি আপনাকে সামনে এগিয়ে যাবার শক্তি যোগাবে। যখনই কোন নেতিবাচিক চিন্তা আসবে তখন তার ইতিবাচিক চিন্তা কি হতে পারে তাও ভাবতে পারেন।তাহলে আপনার মানসিক চাপ কমবে ও আপনি কাজ করার মটিভেশন পাবেন। অন্যদের সাথে নিজের তুলনা করা থেকে বিরত থাকতে পারেন। কারন প্রতিটি মানুষই আলাদা তাদের জীবনের গতি পথ ও আলাদা।বরঞ্চ গতকাল থেকে আজ আপনি কতটা ভাল আছেন, কতটা ভাল করেছেন তা ভেবে দেখতে পারেন। নিজের ভিতরের প্রতিভা,ইতিবাচক ও সম্ভাবনার দিকগুলো খুজে বের করে তা কিভাবে কাজে লাগান যায়, ভেবে দেখতে পারেন। নিজের প্রতি আত্মনির্ভরশীলতা  বাড়াতে পারেন-নিজেকে বলতে পারেন আমি পারব,আমার অনেক ইতিবাচক দিক রয়েছে, একটু চেষ্টা করলেই আমি ভাল করতে পারব। নিয়মিত ব্যয়াম করতে পারেন এতে শরীর ও মন দুটাই ভাল থাকবে। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। পরবর্তীতে আর কোন প্রশ্ন থাকলে মায়া আপাতে জানান। পাশে আছি সবসময় মায়া আপা।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও