প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। আপনি উল্লেখিত বিষয়গুলো নিয়ে মানসিক ভাবে দুশ্চিন্তায় রয়েছেন তা আমি বুঝতে পারছি। নিজের ভালো থাকা নিয়ে এতটা সচেতন হয়ে এখানে সাহায্য চাইবার জন্য আন্তরিক সাধুবাদ জানাচ্ছি আপনাকে। আমাদের সকলেরই আলাদা মানুষ হিসেবে আলাদা আলাদাভাবে চিন্তা করার ও সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষমতা রয়েছে। জীবনে চলার পথে আমরা অনেক সময়ই এমন কিছু ঘটনা বা পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে পারি, যা আমাদের সেই যৌক্তিক চিন্তা করার, বা সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষমতার জন্য বাঁধা হয়ে দাঁড়ায়। কিন্তু নিজের মনোবল ধরে রেখে সেই বাঁধাগুলো অতিক্রম করার মাঝেই রয়েছে মানুষ হিসেবে প্রকৃত স্বার্থকতা। আপনি কি আপনার মনের কষ্ট গুলো, বা যা নিয়ে দুশ্চিন্তায় রয়েছেন তা কারো সাথে বলেছেন কি? মনের কষ্ট চাপিয়ে রাখলে যতটা কষ্ট হয়, তা অন্য কারো সাথে শেয়ার করতে পারলে অনেকটাই হালকা হয়ে যায়। আপনি নিজের প্রতি আরও বেশি যত্মশীল হবার চেষ্টা করুন। নিজের মনের আবেগ অনুভূতি ইত্যাদির প্রতি সহানুভূতিশীল হবার চেষ্টা করুন। নিজের জন্য আলাদা সময় নিন। পছন্দ ও ভালোলাগার কাজগুলো করুন যাতে মন ভালো থাকে। দৈনিক কিছু শারীরিক ব্যায়াম এবং মেডিটেশন/শ্বাস প্রশ্বাসের ব্যায়াম চর্চা করুন। এতে মন এবং শরীর দুটোই ভালো থাকবে। নেতিবাচক চিন্তাভাবনা একেবারেই করবেন না। সবসময় ইতিবাচক চিন্তাভাবনা করার অভ্যাস করুন। রাতে পরিমিত ঘুমান ও সারাদিনে পরিমিত বিশ্রাম নিন। ঘুম পরিমাণ মত না হলে তা আমাদের শারীরিক অবস্থার পাশাপাশি মানসিক অবস্থার উপরেও নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। ঘুমানোর জন্য আরামদায়ক পরিবেশ নিশ্চিত করুন। ঘুমানোর আগে কোন ধরনের স্ক্রিন অন্তত ২ ঘন্টা ইউজ না করতে চেষ্টা করুন। ঘুমাতে গিয়ে শুয়ে শ্বাস প্রশ্বাসের ব্যায়াম টি চর্চা করতে পারেন। শ্বাস প্রশ্বাসের ব্যায়াম যেভাবে করবেনঃ প্রথমে হাত পা ছেড়ে দিয়ে আরাম করে শোবেন তারপর ধীরে ধীরে চোখ বন্ধ করবেন নিজের শরীরের কোন জায়গা কি কি জিনিস স্পর্শ করে আছে তা খেয়াল করবেন তারপর আপনার শ্বাস প্রশ্বাসের দিকে মনোযোগ নিয়ে আসবেন গভীরভাবে শ্বাস নেবেন, কিছুক্ষণ ধরে রাখবেন, আস্তে আস্তে মুখ দিয়ে শ্বাস ছেড়ে দিবেন এভাবে ৫-৬ মিনিট একইভাবে শ্বাস প্রশ্বাসের ব্যায়াম টি অনুশীলন করবেন এতে করে ব্রেইনে পর্যাপ্ত অক্সিজেন চলাচল করবে ও মনও শান্ত হবে। আপনার সার্বিক মঙ্গল কামনা। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও