গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। প্রস্টেট একটি বাদাম আকারের গ্লান্ড যা ছেলেদের মুত্রথলির সামনে থাকে। এই গ্লান্ড দিয়ে সেমিনাল ফ্লুইড বের হয় যা বীর্য এ ঘনত্ব বাড়িয়ে দেয়। প্রস্টেট ক্যান্সার হলে প্রথমেই যেসব লক্ষন দেখা যায় সেগুলা হল ঃ১। প্রসাব করার সময় ঠিকমত প্রসাব বের হয়না। ২। প্রসাব অল্প করে ফোটায় ফোটায় বের হয়। ৩। বীর্য এর সাথে রক্ত বের হয়। ৪। হাড় এ ব্যথা ৫। লিংগ শক্ত না হওয়া। অবশ্য অনেক সময় ক্যান্সার এর প্রাথমিক অবস্থায় কোন লক্ষন দেখা যায়না। যাদের প্রস্টেট ক্যান্সার হওয়ার স্বম্ভাবনা বেশি ঃ১। বয়ষ্ক ২। স্থুলতা৩। পরিবারে আর কারো থাকলে। যেহেতু এই গ্লান্ড শুধু পুরুষদের আছে সেহেতু প্রস্টেট ক্যান্সার শুধুমাত্র পুরুষদের হয়। উপরোক্ত যেকোন লক্ষন দেখা দিলে অতিদ্রুত ইরোলোজিস্ট বিশেষজ্ঞ এর পরামর্শ নিতে হবে। প্রতিরোধঃ১। প্রতিদিন ব্যায়াম করতে হবে। ২। ফলমুল বেশি খেতে হবে। ৩। ওজন বেশি হলে অবশ্যই ওজন কমাতে হবে। আশা করি আপনার প্রশ্নের উত্তর দিতে পেরেছি। আর কিছু জানার থাকলে অবশ্যই আমাদের কাছে লিখে পাঠান। পাশে আছি সবসময়, মায়া।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও